প্রয়াত বামপন্থী আন্দোলনের অন্যতম নেতা সুশীল দিন্দাঃ শোকের ছায়া


প্রসেনজিৎ পান্ডা,হাওড়া :প্রয়াত হলেন বামপন্থী আন্দোলনের অন্যতম নেতা সুশীল দিন্দা। দীর্ঘ দিনধরে বার্ধক্যজনিত সমস্যায় ভুগতে থাকার পর শুক্রবার বেলা ২.৫০ মিনিটে নিজ বাসভবন গ্রামীণ হাওড়ার শ্যামপুর থানার অন্তর্গত কমলপুর গ্রামে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন বর্ষীয়ান সিপিআইএম নেতা। মৃত্যুকালে বয়স হয়েছিল ৯৩ বছর। তিনি কর্মজীবনে রাধাপুর উচ্চবিদ্যালয়ে শিক্ষকতা করার সময় থেকে সত্যপ্রিয় রায় ও অনিলা দেবীর সংস্পর্শে এসে সিপিআইএমের শিক্ষক সংগঠন এবিটিএ-র সদস্যপদ লাভ করে শিক্ষক আন্দোলনের সাথে যুক্ত হন। শিক্ষক আন্দোলনে যুক্ত হওয়ার পর থেকেই ১৯৬২ সালে অবিভক্ত কমিউনিস্ট পার্টির সদস্য পদ লাভ করেন। পরে সেখানে সম্পর্ক ছিন্ন করে সিপিআইএমের সদস্য পদ লাভ করে সপ্তম পার্টী কংগ্রেসে প্রতিনিধিত্ব করেন। মদন দাস,শ্যামাপ্রসন্ন ভট্টাচার্য ও জয়কেশ মুখার্জীর স্নেহভাজন হয়ে শ্যামপুর থানা এলাকায় ভাগচাষী ও কৃষক আন্দোলনে নেতৃত্ব দিয়ে জনপ্রিয়তা লাভ করে বেশ কয়েকবার ত্রিস্তর পঞ্চায়েত নির্বাচনে গ্রাম পঞ্চায়েত ও পঞ্চায়েত সমিতির সদস্য পদের পাশাপাশি বাগনান শ্যামপুর অবিভক্ত জোনাল কমিটির সম্পাদকের মতো গুরু দায়িত্বের পদ ও সামলেছেন বলে জানা গেছে। মৃত্যুকালে রেখে গেলেন দুই পুত্র ও দুই কন্যা। প্রবীণ সিপিআইএম নেতার মৃত্যুর খবর ছড়িয়ে পড়তেই এলাকায় ভিড় জমান দলীয় কর্মী সর্মথকের পাশাপাশি গ্রামের বিভিন্নস্তরের মানুষজন। দলীয় নেতার মৃত্যুতে তাঁর পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানিয়ে গভীরভাবে শোকপ্রকাশ করেন জেলা সম্পাদক বিপ্লব মজুমদার। শোকপ্রকাশ করেন আমতা বিধিনসভা কেন্দ্রের কংগ্রেস বিধায়ক অসিত মিত্র। শোক প্রকাশ করেন শ্যামপুরের বিধায়ক তথা তৃণমূল কংগ্রেস নেতা কালিপদ মন্ডল,পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতি জুলফিকার মোল্লা সহ অন্যান্য রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব।

শেয়ার করুন