ফেসবুক পোষ্টে অশ্লীল মন্তব্য : ক্ষোভ গাইকা ইমন চক্রবর্তীর


দেবযানী ভট্টাচার্য্য: অন্যায় কোনো কালেই সহ্য করেন না ইমন চক্রবর্তী (Iman Chakraborty)। তা সে বাস্তব জগতেই হোক বা ভারচুয়াল জগতে। প্রতিবাদ জানাতে কখনও কুণ্ঠা বোধ করেন না জাতীয় পুরস্কার জয়ী বঙ্গললনা। করোনা (CoronaVirus) পরিস্থিতিতেও সেই ধারা অব্যাহত রেখেছেন। সোশ্যাল মিডিয়ায় কদর্য ভাষায় মন্তব্য করেছিল এক ব্যক্তি। তার তীব্র বিরোধিতা করেছেন ইমন। ইনস্টাগ্রামে শেয়ার করেছেন স্ক্রিন শট।

অভিযুক্তের প্রোফাইল থেকে ইমনের কোনও একটি পোস্টের প্রতিক্রিয়া দিতে গিয়ে লেখা হয়, “তোমার দেহের প্রতিটা ইঞ্চি ভোগ করব, প্রতিটা পশমে আদর করব”। তারই স্ক্রিন শট শেয়ার করেছেন ইমন। অশ্লীল মন্তব্যটি মার্ক করে লিখেছেন,

“দয়া করে এই প্রোফাইলটি ব্লক করুন বা এর বিরুদ্ধে রিপোর্ট করুন। উনি কী করবেন সেটা বলেছেন। আপনারা কী করতে পারেন একটু দেখিয়ে দিন প্লিজ!”

ইমন পোস্ট শেয়ার করতেই ক্ষোভে ফেটে পড়েন তাঁর অনুরাগীরা। ভারচুয়াল প্রযুক্তির সুযোগ নিয়ে এমন কদর্য মন্তব্য করার জন্য তীব্র সমালোচনা করেন। কেউ কেউ আবার দাবি করেছেন, প্রোফাইলটি বাংলাদেশের। সেদেশে নাকি এমন প্রোফাইল ব্লক করার অপশন নেই। তবে বেশিরভাগই ইমনের পাশে দাঁড়িয়ে প্রোফাইলের বিরুদ্ধে রিপোর্ট করার আশ্বাস দিয়েছেন।

অনলাইনে নিগ্রহের ঘটনা নতুন নয়। বিশেষ করে মহিলা তারকাদের ক্ষেত্রে। বলিউডের অভিনেত্রী-গায়িকা থেকে টলিউডের অভিনেত্রী-গায়িকা, কেউই ভারচুয়াল হেনস্তার হাত থেকে রেহাই পাননি। সোশ্যাল মিডিয়ায় না হলেও কিছুদিন আগেই অবাঞ্ছিত ফোন কলের জ্বালায় তিতিবিরক্ত শ্রাবন্তী (Srabanti Chatterjee) বাংলাদেশ হাইকমিশনের দ্বারস্থ হয়েছিলেন। বাংলাদেশের বেশ কয়েকটি নম্বর থেকে অনেকদিন যাবৎ অশ্লীল মেসেজ আসছিল তাঁর নম্বরে। নম্বর ব্লক করেও রেহাই মেলেনি। এরপরই হাই কমিশনে নালিশ জানান শ্রাবন্তী।

শেয়ার করুন