মালদহ তৃণমূল কার্যালয়ে শহীদ দিবস কর্মসূচী


নিজস্ব সংবাদদাতা,মালদহ: দলনেত্রী মমতা ব্যানার্জির নির্দেশ মেনে একযোগে মালদা তৃণমূল কার্যালয়ে সংলগ্ন এলাকাতেই পালিত হল একুশে জুলাই শহীদ দিবস কর্মসূচি । মঙ্গলবার দুপুরে মুখ্যমন্ত্রীর ভার্চুয়াল জনসভা দেখার জন্য বসানো হয়েছিল জায়েন্ট স্ক্রীনের ব্যবস্থাও। কিন্তু দলনেত্রী তথা মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জির ভাষণ শুরু হওয়ার আগেই মালদা শহরের স্টেশন রোড সংলগ্ন এলাকার নূর মেনশন ভবনের সামনেই তৃণমূল দলের পতাকা উত্তোলন করেন জেলা সভাপতি তথা রাজ্যসভার সাংসদ মৌসম নুর। উপস্থিত ছিলেন জেলা তৃণমূলের মহিলা দলের সভানেত্রী চৈতালি সরকার, কাউন্সিলর শুভদীপ সান্যাল, তৃণমূল নেতা ছোটন মল্লিক সহ অন্যান্যরা।

এদিন সমদূরত্ব বজায় রেখে এবং মুখে মাক্স পরে তৃণমূলের জেলা কার্যালয় নুর মেনশন ভবনের সামনেই সারিবদ্ধ ভাবে দীর্ঘক্ষণ তৃণমূল নেত্রী মমতা ব্যানার্জীর ভাষণ শোনার জন্য অপেক্ষা করেন দলের নেতাকর্মীরা। জায়েন্ট স্কিনের মাধ্যমে সরাসরি মমতা ব্যানার্জি জনসভার ভাষণ সম্প্রচারিত করা হয়। একুশে জুলাই উপলক্ষে গোটা শহর কার্যত তৃণমূলের পোস্টার-ব্যানারে মুড়ে ফেলা হয়েছিল। বৃষ্টি উপেক্ষা করেই এদিন মুখ্যমন্ত্রীর সরাসরি বক্তব্য শোনার জন্য তৃণমূলের জেলা কার্যালয়ে বহু নেতাকর্মীরা ভিড় করেছিলেন। কিন্তু প্রত্যেকেই সমদূরত্ব বজায় রেখেই এদিনের একুশে জুলাই মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জীর ভাষণ শুনতে আগ্রহী হন।

তৃণমূলের জেলা সভাপতি তথা রাজ্যসভার সংসদ সদস্য মৌসুম নূর বলেন, দলনেত্রী তথা মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি একুশে জুলাই শহীদ দিবস উপলক্ষে জনসভার মাধ্যমে দলীয় নেতাকর্মীদের যেরকম নির্দেশ দিয়েছেন, তা অক্ষরে অক্ষরে পালন করা হবে। এদিন জেলা স্তরের সমস্ত নেতাকর্মীদের মুখ্যমন্ত্রীর এই ভার্চুয়াল জনসভা দেখানো হয়েছে । করোনা সংক্রমণের মধ্যে এবং লকডাউন পরিস্থিতিতে সরকারি সবরকম নির্দেশিকা মেনেই এদিনের এই কর্মসূচি আমরা পালন করেছি । শহীদ দলীয় কর্মীদের উদ্দেশ্য এবং মাল্যদান কর্মসূচী এবং শোকজ্ঞাপন পালন করা হয়। 

শেয়ার করুন