শিল্প আর শিল্পী , লকডাউনের তীব্র প্রভাব

দেবাশীষ পাল,মালদাঃ-লক ডাউনের প্রভাব পড়েছে শিল্পী মহলে। থমকে গিয়েছে শিল্পী মহলে কাজ। আর মাত্র হাতে গুনা কয় মাস তার আগে প্রস্তুতি শুরু দূর্গা প্রতিমা তৈরি কাজ এমনি ছবি উঠে আসলো মালদহের হবিবপুর থানার অন্তর্গত বুলবুলচন্ডী কুমারটুলিতে।লক ডাউন থাকায় বিক্রি হয়নি বাসন্তী পুজোর প্রতিমা থেকে গণেশ, লক্ষ্মী, হনুমান থমকে গিয়েছে প্রতিমা শিল্পীদের কাজকর্ম চিন্তায় মাথায় হাত পরে শিল্পী মহলে কি করে চলবে সংসার। তৈরি করা প্রতিমা বিক্রি হয়নি।এই পরিস্থিতিতে শিল্পী মহলে সকলেই প্রশাসনের দারস্থ হয়। প্রশাসনের পক্ষে থেকে আশ্বাস দেওয়া হয়। প্রতিমা শিল্পী উত্তম কুমার পাল বলেন, লক ডাউন হয়ে পরায় আমাদের অডারের বাসন্তী প্রতিমা ও শিব, হনুমান, গণেশ লক্ষ্মী সহ বিভিন্ন প্রতিমা নিতে আসেনি কেউ সেই পরিস্থিতিতে কি করে সংসার চলবে কিছু বুঝতে পারছিলাম না নিজের অর্থ দিয়ে প্রতিমা তৈরি করে বিক্রি না হওয়া মৃৎশিল্পী উত্তম কুমার পাল সহ বিভিন্ন শিল্পী মহলে চিন্তা পরে যায় এই পরিস্থিতিতে প্রশাসনের দারস্থ হয়। প্রশাসনের তরফে তাদের পাশে দারানো আশ্বাস দেওয়া হয়। উত্তম কুমার পাল আরো বলেন কত দিন বসে থাকব এই ভাবে তাই নিজেরাই ঋন নিয়ে দূর্গা প্রতিমার কাজ শুরু করেছি। এবছর কত টা দূর্গা প্রতিমা বিক্রি হবে।জানিনা কি করে চলবে সংসার।নিজের দায়িত্বে দূর্গার প্রতিমার কাজ শুরু করেছি হাতে আর কয় মাস যদি লক ডাউন পুরোপুরি ভাবে উঠে যায় তাহলে দূর্গা অডার আসলে কি করে যোগান দেবো প্রতিমার। প্রতি বছর আগাম আমাদের দূর্গা কাজ শুরু করতে হয়।এবছরের তুলনায় গত বছর এতো দিনে আমাদের প্রতিমা সব অডার হয়ে যায়।কিন্তু এবছর এখনো কোন অডার আসেনি কি হবে ভেবে উঠতে পারছেন না শিল্পী মহলে শিল্পীরা।মৃৎশিল্পী উত্তম বাবু বলেন এবছর ২৫ টা দূর্গা প্রতিমার কাজ করেছি আমাদের এখানে এই রকম অনেকেই ঘরে তৈরি হয়েছে দূর্গা প্রতিমার কাজ। কি হবে তা শুধু ভগবান জানের তার ভরসায় এবার প্রতিমার তৈরি কাজ শুরু করেছি।প্রতিমা বিক্রি না হলে এবার অবস্থা খুব খারাপ পরিনতি আসবে শিল্পী মহলে।

শেয়ার করুন